রংপুরে মুসল্লিদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে যুবক নিহত ॥ ৬ জন গুলিবদ্ধসহ আহত অর্ধশতাধিক
আব্দুর রহমান রাসেল,রংপুর:
রংপুরে মহানবীকে (সাঃ) নিয়ে ফেসবুকে কটূক্তি করার প্রতিবাদ করতে গিয়ে স্থানীয় মুসল্লিদের সঙ্গে পুলিশের ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে। এতে হামিদুল ইসলাম নামে স্থানীয় এক যুবক (২৭) নিহত হয়েছেন এবং ৬ জন গুলিবদ্ধসহ প্রায় অর্ধশতাধিক আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে পুলিশসহ অন্তত ১৩ জন গুরুতর আহত অবস্থায় রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। আজ শুক্রবার জুমার নামাজের পর রংপুর সদর উপজেলার খলেয়া ইউনিয়নের শলেয়া শাহ বাজারে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ রাবাট বুলেট ও টিয়ারশেল ছুড়েছে। এ সময় বিক্ষুব্ধ মুসল্লিরা ওই এলাকার ঠাকুরপাড়ার মন্দিরসহ কয়েকটি বাড়িতে অগ্নিসংযোগ করেছে।
স্থানীয়রা জানান, কয়েকদিন আগে ওই এলাকার টিটু চন্দ্র নামে এক ব্যক্তি মহানবীকে (সাঃ) নিয়ে ফেসবুকে কটূক্তি ও আপত্তিকর ছবি পোস্ট করেন। এরই প্রতিবাদে শুক্রবার জুমার নামাজের পর স্থানীয় মুসল্লিরা এক জোট হয়ে পাগলাপীর বাজারে মানববন্ধন শুরু করেন। এ সময় ওই কর্মসূচিতে সংহতি জানিয়ে আশপাশের কয়েক হাজার মুসল্লি সমবেত হন। একপর্যায়ে বিক্ষুব্ধ মুসল্লিরা ঠাকুরপাড়ার দিকে অগ্রসর হতে থাকলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। এতে পুলিশের সঙ্গে মুসল্লিদের সংঘর্ষ শুরু হয়। এ সময় মুসল্লিরা ওই পাড়ার মন্দিরসহ কয়েকটি বাড়িতে অগ্নিসংযোগ করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ শতাধিক রাউন্ড রাবার বুলেট ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে। এ সময় সংঘর্ষে পুলিশসহ অর্ধশতাধিক আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে পুলিশসহ ১৩ জন গুরুতর আহত অবস্থায় রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ওই এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।
ঘটনাস্থল থেকে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সার্কেল-এ) সাইফুর রহমান জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ কাজ করছে।

(Visited 1 times, 1 visits today)

সম্পাদক ও প্রকাশক

কাজী জাহাঙ্গীর আলম সরকার।

ই-মেইল: jahangirbhaluka@gmail.com
নিউজ: bsomoy71@gmail.com

মোবাইল: ০১৭১৬৯০৭৯৮৪

%d bloggers like this: