কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃকুড়িগ্রামের রৌমারী সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ’র ধাওয়া খেয়ে পালাতে গিয়ে খয়বর রহমান নামের বাংলাদেশি এক নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত বাংলাদেশি একজন গরু ব্যবসায়ি বলে জানা গেছে। গরু নামানোর সময় বিএসএফ ধাওয়া করলে পালাতে গিয়ে জিঞ্জিরাম নদীতে ঝাঁপ দেয় সে।বুধবার ভোর রাতে উপজেলার ধর্মপুর সীমান্তে ওই ঘটনার পর দুপুর ১টার দিকে সীমান্তঘেষা জিঞ্জিরাম নদী থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। সীমান্তবাসি সূত্র বলছে, গতকাল রাতে ১০/১২ জনের একটি বাংলাদেশি গরু ব্যবসায়ীরর দল ধর্মপুর সীমান্তের আন্তর্জাতিক মেইন পিলার ১০৫৬ ও ১০৫৭ এর মাঝে ভারত থেকে কাঁটাতারের বেড়ার ওপর দিয়ে বিশেষ কায়দায় আড়কির মাধ্যমে গরু নামাতে যায়। এসময় ভারতের গুটলিগাঁও ক্যাম্পের বিএসএফ’র একটি টহলদল ওই গরু ব্যবসায়িদের ধাওয়া করে। বিএসএফ’র ধাওয়ায় যে যার মতো পালিয়ে চলে আসে। কিন্তু ওই দলের একজন খয়বর রহমান পালাতে গিয়ে জিঞ্জিরাম নদীতে ঝাঁপ দেয়। কিন্তু প্রচন্ড ঠান্ডায় নদীতেই তার মৃত্যু ঘটে। পালিয়ে আসা অন্য গরু ব্যবসায়িরা নিহতের পরিবারকে খবর দিলে নদীতে তাকে খুঁজতে থাকে স্বজনরা। দুপুর ১টার দিকে নদীতে খয়বরের লাশ ভেসে উঠলে তা উদ্ধার করা হয়। নিহত খয়বর রহমানের বাড়ি উপজেলার দাঁতভাঙ্গা ইউনিয়নের হরিণধরা গ্রামে।
এ ঘটনায় রৌমারী থানার অফিসার ইনচার্জ হাসান ইনাম বলেন, ময়না তদন্তের জন্য লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তবে শরীরের নির্যাতনের কোনো চিহ্ন নেই। সীমান্তের সূত্র মতো বিএসএফ’র ধাওয়া খেয়ে পালাতে গিয়ে নদীতে ঝাঁপ দিলে প্রচন্ড ঠান্ডার কবলে পরে তার মৃত্যু ঘটে।

 

(Visited 1 times, 1 visits today)

সম্পাদক ও প্রকাশক

কাজী জাহাঙ্গীর আলম সরকার।

ই-মেইল: jahangirbhaluka@gmail.com
নিউজ: bsomoy71@gmail.com

মোবাইল: ০১৭১৬৯০৭৯৮৪

%d bloggers like this: